রাজশাহী,,

ব্যক্তিগত মতামতের ছড়াছড়ি

উপচার ডেস্ক: সর্বোচ্চ আদালত কর্তৃক ষোড়শ সংশোধনী অবৈধ ঘোষণার পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশের পর প্রধান বিচারপতিকে নিয়ে একের পর এক লাগামহীন বক্তব্য দিয়েই চলছে আওয়ামী লীগের শীর্ষ থেকে শুরু করে সকল পর্যায়ের নেতাকর্মীরা। বক্তব্যে প্রধান বিচারপতিকে নিয়ে এমন সব ভাষার ব্যবহার করছে যা বিশেষজ্ঞরা একে আদালত অবমাননার শামিল বলছেন। তবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেছেন মন্ত্রীদের মত তাদের ব্যক্তিগত। : অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত বলেছেন, বিচারপতি অপসারণ সংক্রান্ত সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী আদালত যতবার বাতিল করবে সংসদে ততবারই নতুন করে এই সংশোধনী পাস করা হবে। বিচারপতিদের চাকরি সংসদই দেয়, সুতরাং তাদের অপসারণের মতা সংসদের হাতেই থাকা উচিত। গতকাল শুক্রবার দুপুরে সিলেটের দণি সুরমায় সিলেট মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের স্থান পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী এ কথা বলেন । : বিচারপতির আসন ছেড়ে মাঠে আসুন : প্রধান বিচারপতিকে হানিফ : প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহাকে উদ্দেশ্য করে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেছেন, রাজনীতি করতে চাইলে বিচারপতির আসন ছেড়ে দিয়ে মাঠে আসুন। সাংবিধানিক পদে থেকে রাজনৈতিক কথাবার্তা বলে বিচার বিভাগকে কলুষিত করবেন না। গতকাল সোমবার ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে ‘স্বেচ্ছায় রক্তদান কর্মসূচি ও আলোচনা সভায়’ তিনি এসব কথা বলেন। : পার্লামেন্ট যদি অবৈধ হয়, তোমার নিয়োগও অবৈধ : আমু : গত শনিবার দুপুরে ঝালকাঠিতে প্রধান বিচারপতির উদ্দেশে শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেছেন, ‘পার্লামেন্ট যদি অবৈধ হয়, তোমার নিয়োগও অবৈধ। কারণ এই পার্লামেন্ট রাষ্ট্রপতি নির্বাচন করেছে। সেই রাষ্ট্রপতি তোমাকে নিয়োগ দিয়েছে। তোমার নিয়োগ অবৈধ, তুমি অবৈধ চিফ জাস্টিস।’ : প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার (এস কে) সিনহাকে উদ্দেশ্য করে গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন বলেছেন ‘আপনি যা ভাবছেন এবং মুক্তিযুদ্ধের বিপ শক্তির সঙ্গে কণ্ঠ মিলিয়ে যা বলছেন তা ঠিক নয়। বাংলার মানুষ জানে- আপনি শান্তি কমিটির সদস্য ছিলেন।’ জাতীয় শোক দিবস উপলে বুধবার ঢাকা মহানগর দণি যুবলীগের এক আলোচনা সভায় মন্ত্রী এসব কথা বলেন। গত শুক্রবার মাদারীপুরের শিবচরে এলজিআরডিমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায়ে প্রধান বিচারপতি সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে কটা করার ধৃষ্টতা দেখিয়েছেন। : প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহার অপসারণ দাবি করেছেন খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম। গত বৃহস্পতিবার খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম বলেন, তার যদি নৈতিকতা থাকে তাহলে তিনি স্বেচ্ছায় চলে যাবেন। না হলে আইনজীবীরা তার বিরুদ্ধে আন্দোলন গড়ে তুলবেন। খাদ্যমন্ত্রী বলেন, তার (প্রধান বিচারপতি) যদি সামান্যতম জ্ঞান থাকে, সামান্যতম বুঝ থাকে তাহলে স্বেচ্ছায় চলে যাবেন। তা না হলে সেপ্টেম্বর মাস থেকে আইনজীবীরা তার বিরুদ্ধে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলবেন। : প্রধান বিচারপতি যোগ্যতা হারিয়েছেন : হাছান মাহমুদ : সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায়ের পর্যবেণে প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা সংবিধান লঙ্ঘন করে যোগ্যতা হারিয়েছেন বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ। গত বৃহস্পতিবার (১৭ আগস্ট) জাতীয় প্রেসকাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে বাংলাদেশ স্বাধীনতা পরিষদ আয়োজিত ‘বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ; উন্নয়নে শেখ হাসিনা’ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন। : সংসদে হাত দেয়ার মতা কারো নেই : নাসিম : জনগণের ভোটে নির্বাচিত সার্বভৌম সংসদে হাত দেয়ার মতা কারো নেই বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। তিনি বলেন, জনগণের ভোটে নির্বাচিত সংসদ সার্বভৌম। এ সংসদে হাত দেয়ার মতা জনগণ ছাড়া আর কারো নেই। : কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম ৮ আগস্ট রাজধানীর ধানমন্ডির ৩২ নস্বর সড়কের বঙ্গবন্ধু ভবনের সামনে বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের জন্মদিন উপলে আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের উদ্যোগে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন : আওয়ামী লীগ নেতাদের এমন বক্তব্যকে ব্যক্তিগত মন্তব্য বলে অভিহিত করেছেন ওবায়দুল কাদের। : ষোড়শ সংশোধনী নিয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের বক্তব্য ‘ব্যক্তিগত’ বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। গত রবিবার হোটেল সোনারগাঁওয়ে আয়োজিত ‘ম্যাস র‌্যাপিড ট্রানজিট (এমআরটি) লাইন-৬ কন্ট্র্যাক্ট প্যাকেজ-০৮’ শীর্ষক চুক্তি সই অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে মন্ত্রী এসব কথা বলেন। গত রবিবার ওবায়দুল কাদের বলেছেন, খাদ্যমন্ত্রীসহ মন্ত্রীদের বক্তব্য তাদের ব্যক্তিগত, দলের নয়।

Share

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



প্রকাশক ও সম্পাদক: ড. আবু ইউসুফ সেলিম
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: নুরে ইসলাম মিলন
বার্তা সম্পাদক : ফাহমিদা আফরীণ
প্রধান প্রতিবেদক: এস.এম.আব্দুল কাজিম

মিয়াপাড়া কেজি স্কুলের উত্তরে, রাজশাহী।
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মোবাইল ০১৭১২-৭৮৭৯৮৫
বার্তা কক্ষ:- অফিস ০৭২১-৭৭২৬০৬
মোবাইল:- ০১৭১৯-৯৩২৮৯৯
Email : upochar.news@gmail.com
www.dailyupochar.com
https://www.facebook.com/pg/DailyUpochar

Design & Developed BY